মঙ্গলবার, ১১ অগাস্ট ২০২০ খ্রীষ্টাব্দ | ২৭ শ্রাবণ ১৪২৭ বঙ্গাব্দ |
শিরোনাম
ধর্মপাশায় অবৈধ মশারি জাল জব্দ  » «   গোলাপগঞ্জের বাদেপাশায় নদী ও খাল ভাঙ্গনের কবলে কয়েকটি রাস্তা দূর্ভোগে হাজরো মানুষ  » «   করোনায় পুলিশের সদস্যর মৃত্যু  » «   ভারতের সাবেক রাষ্ট্রপতি প্রণব মুখার্জির দ্রুত আরোগ্য কামনা করেছেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী  » «   করোনায় আক্রান্ত পাট মন্ত্রণালয়ের ৪ কর্মকর্তা-কর্মচারী  » «   হোয়াইট হাউসে সাংবাদিকদের বৈঠকের সামনে গুলি, সরিয়ে নেয়া হল ট্রাম্পকে  » «   রাশিয়ার তৈরি প্রথম ভ্যাকসিন কাজ করবে যে রকম  » «   করোনায় সারা বিশ্বে মৃত্যু ৭ লাখ ৩৪ হাজার ছাড়িয়েছে  » «   ভেন্টিলেশন সাপোর্টে প্রণব মুখার্জি  » «   নতুন রোগে আক্রান্ত বিশ্বের ১৩ কোটি মানুষ  » «   আজকের খেলার সময় সূচি  » «   আনুষ্ঠানিক অনুমতি পেলো আইপিএল  » «   অ্যাম্বুলেন্সেও জীবিত ছিলেন সুশান্ত,তদন্তে নতুন মোড়  » «   পাকিস্তানের বেলুচিস্তানে প্রদেশে বোমা বিস্ফোরণে নিহত ৬  » «   বার্মিংহামে প্লাস্টিক ফ্যাক্টরিতে ভয়াবহ আগুন  » «  

বন্দুকযুদ্ধে ৩ মাদক কারবারি নিহত

Sharing is caring!

আমার বাংলাদেশ অনলাইন ডেস্ক :কক্সবাজারের চকরিয়া উপজেলায় কথিত বন্দুকযুদ্ধে তিনজন নিহত হয়েছেন। পুলিশের দাবি, নিহতরা মাদক কারবারি।

আজ শুক্রবার ভোর ৪টার দিকে উপজেলার বানিয়ারছড়ার পাহাড়ি এলাকা আমতলী গর্জন বাগানের ভেতরে এ ঘটনা ঘটে।

চকরিয়া থানার পুলিশ পরিদর্শক (তদন্ত) মো. মিজানুর রহমান জানান, গতকাল বৃহস্পতিবার দিবাগত রাত দেড়টার দিকে বরইতলী নতুন রাস্তার মাথা এলাকা থেকে জাহেদা বেগম ও মোজাফ্ফর আহমদ নামের দুজন মাদক কারবারিকে ছয় হাজার ইয়াবাসহ গ্রেপ্তার করে পুলিশ।

পরে পুলিশের প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে তাঁরা তথ্য দেন, রাতে বানিয়ারছড়া পাহাড়ি এলাকায় ইয়াবার একটি বড় চালান হাতবদল হবে। সেই চালান এবং মাদক ও অস্ত্রধারী সন্ত্রাসীদের গ্রেপ্তারের জন্য পুলিশ অভিযান শুরু করে।

চকরিয়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) হাবিবুর রহমান জানান, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে ইয়াবার বড় চালান হাতবদলের তথ্য পেয়ে একদল পুলিশ বানিয়ারছড়ার পাহাড়ি এলাকা আমতলী গর্জন বাগানের ভেতরে অভিযানে গেলে পুলিশকে লক্ষ্য করে মাদক কারবারি ও সন্ত্রাসীরা গুলি চালায়।

এ সময় পুলিশও পাল্টা গুলি ছুড়লে উভয়পক্ষের মধ্যে বন্দুকযুদ্ধের ঘটনা ঘটে। পরে মাদক কারবারি ও সন্ত্রাসীরা পালিয়ে যায়। বন্দুকযুদ্ধের সময় তিনজন ইয়াবা কারবারি ও অস্ত্রধারী সন্ত্রাসী নিহত হয়।

তবে তাৎক্ষণিকভাবে নিহতদের পরিচয় নিশ্চিত করতে পারেনি পুলিশ। তাদের পরিচয় নিশ্চিতে তথ্য সংগ্রহ করা হচ্ছে।

পুলিশের দাবি, গোলাগুলিতে চার পুলিশ আহত হয়েছেন। তাঁরা হলেন চকরিয়া থানার ওসি মো. হাবিবুর রহমান, হারবাং পুলিশ ফাঁড়ির দায়িত্বরত পরিদর্শক আমিনুল ইসলাম, কনস্টেবল সাজ্জাদ হোসেন ও মো. সবুজ।

তাঁদের উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে।

ঘটনাস্থল থেকে ৪৪ হাজার ইয়াবা, দেশে তৈরি দুটি আগ্নেয়াস্ত্র, সাতটি গুলি ও ১৫টি গুলির খোসা উদ্ধার করা হয়েছে বলেও দাবি পুলিশের।

এ ঘটনায় হত্যা, অস্ত্র ও মাদক আইনে পৃথক তিনটি মামলা দায়ের করা হচ্ছে।

(আমার বাংলাদেশ/রুআহমেদ// )

প্রতি মুহুর্তের খবর পেতে এখানে(লাইনে) ক্লিক করে আমাদের ফেসবুক পেজে লাইক দিন

সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করবেন

Sharing is caring!

সর্বশেষ সংবাদ

Developed by: -