শুক্রবার, ২১ ফেব্রুয়ারী ২০২০ খ্রীষ্টাব্দ | ৯ ফাল্গুন ১৪২৬ বঙ্গাব্দ |
শিরোনাম
দরিদ্র্যতা কমাতে ধনীরা গরিবদের বিয়ে করুন: ইন্দোনেশিয়ার মন্ত্রী  » «   তাহিরপুরে সংস্কার হচ্ছে না শহিদমিনার  » «   শাবিতে আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা ও মহান শহিদ দিবস পালিত  » «   ৬৮ বছরেও হয়নি ভাষা সংগ্রামীদের তালিকা  » «   সুনামগঞ্জে প্রথম প্রহরে ভাষা শহীদের প্রতি শ্রদ্ধা নিবেদন  » «   গোলাপগঞ্জে একুশের প্রথম প্রহরে ভাষা শহীদদের প্রতি শ্রদ্ধা  » «   গোয়াইনঘাটে ভাষা শহীদদের প্রতি শ্রদ্ধাঞ্জলি  » «   সিলেট জেলা ছাত্রদলের ৫ সাংগঠনিক টিম গঠন  » «   শ্রদ্ধার ফুল হাতে সিলেট শহীদ মিনারে মানুষের ঢল  » «   প্রেমিকের সাথে হোটেলে প্রবাসীর স্ত্রী, জেল-জরিমানা  » «   এই প্রথম ইংল্যান্ড দলে একসাথে ৩ মুসলিম ক্রিকেটার  » «   আমি উধাও হইনি, দেশেই আছি : বুবলী  » «   জাতীয় দলে ডাক পেলেন মেহেরপুরের সোহাস  » «   প্রেমিকাকে ৮৭ লাখ টাকা হাতখরচ দেন রোনালদো  » «   শহীদ মিনারে রাষ্ট্রপতি ও প্রধানমন্ত্রীর গভীর শ্রদ্ধা নিবেদন  » «  

বাংলাদেশ-ভারতের ৫ তরুণ ক্রিকেটারকে নি’ষি’দ্ধ

আমার বাংলাদেশ অনলাইন ডেস্ক :অনূর্ধ্ব-১৯ বিশ্বকাপের ফাইনাল শেষে অশো’ভন আচ’রণের কারণে বাংলাদেশ ও ভারতের পাঁচ ক্রিকেটারকে শা’স্তি দিয়েছে আইসিসি। সেদিনের ভিডিও ফুটেজ দেখে আইসিসি উভয় দলের পাঁচ খেলোয়াড়কে কয়েকটি ম্যাচ নি’ষি’দ্ধ করেছে। এদের মধ্যে তিনজন বাংলাদেশি ও দুজন ভারতীয়।

ক্রিকেটাররা অনূর্ধ্ব-১৯ বা ‘এ’ দলের হয়ে সামনের ওয়ানডে অথবা টি-টোয়েন্টি ম্যাচে এই নিষে’ধা’জ্ঞার শা’স্তি ভোগ করবেন। শা’স্তিপ্রাপ্ত বাংলাদেশ অনূর্ধ্ব-১৯ দলের তিন ক্রিকেটার হলেন- তৌহিদ হৃদয় (১০ ম্যাচ নি’ষি’দ্ধ), শামীম হোসেন (৮ ম্যাচ নি’ষি’দ্ধ) এবং রকিবুল হাসান (৪ ম্যাচ নি’ষি’দ্ধ)। ভারতের দুই ক্রিকেটারের মধ্যে আকাশ সিং নি’ষি’দ্ধ হয়েছেন ৬ ম্যাচ আর লেগস্পিনার রবি বিষ্ণুইকে নি’ষি’দ্ধ করা হয়েছে ৫ ম্যাচ।

আইসিসি জানিয়েছে, ফাইনাল ম্যাচ শেষে নিজেদের মধ্যে বি’ত’র্ক এবং ধা’ক্কাধা’ক্কি করে এসব খেলোয়াড় ক্রিকেটের ভাবমূর্তি ন’ষ্ট করেছেন। ফাইনালের ম্যাচ রেফারি গ্রায়েম ল্যাবরয় জানান, বাংলাদেশের তিন ক্রিকেটার ও ভারতের দুই খেলোয়াড় আইসিসির বি’ধিবি’ধানের ২.২১ ধারা ভ’ঙ্গ করেছেন।

ক্রিকেটভিত্তিক ওয়েবসাইট ক্রিকইনফোকে একই কথা বলেন ভারতের টিম ম্যানেজার প্যাটেলও। তার ভাষ্যে, ”আমরা ঠিক জানি না তখন কী হয়েছে। সবাই বি’স্মি’ত ছিলাম। কারণ আমাদের কারওরই জানা ছিল না সেখানে কী হচ্ছে বা হয়েছে।” বাংলাদেশ অধিনায়ক আকবর আলি বলেন, ”আমি জানি না ঠিক কী হয়েছে তখন। আমি জিজ্ঞেসও করিনি সেখান কী হচ্ছে।”

প্রতি মুহুর্তের খবর পেতে এখানে(লাইনে) ক্লিক করে আমাদের ফেসবুক পেজে লাইক দিন

(আমার বাংলাদেশ/রু-আহমেদ/এ/ম )

সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করবেন

সর্বশেষ সংবাদ

Developed by: -